1. admin@www.shikhatvlive.com : news :
শনিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২২, ১০:৫০ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
পুঠিয়ায় খোকসা গ্রামে এক মহিলার বদনাম ছড়ানোর বিচার চাওয়াকে কেন্দ্র করে মারধরের অভিযোগ আখাইলকুড়া ইউনিয়ন ইউনাইটেড গ্রুপের আর্থিক অনুদান প্রদান।। রাজশাহীর বাগমারায় রাতের আঁধারে শীতার্থ মাদ্রাসা শিক্ষার্থীদের মাঝে নব নির্বাচিত চেয়ারম্যান। সেবা প্রার্থীরা যেন হয়রানির শিকার না হয়,পুলিশদের খেয়াল রাখতে হবে: রাষ্ট্রপতি টিকা আবিষ্কারের আগেই সংগ্রহের উদ্যোগ নিয়েছিলাম: প্রধানমন্ত্রী হাওর এলাকায় উড়াল সড়ক নির্মাণের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর পঞ্চম বারের মত আবারো জেলার শ্রেষ্ঠ ওসি বাগমারার মোস্তাক নাটোরে দয়ারামপুর মাস্ক না থাকায় ও স্বাস্থ্যবিধি না মানায় জরিমানা পরীক্ষা স্থগিত এর প্রতিবাদে মৌলভীবাজারে মানববন্ধন।। নাটোরের সিংড়ায় মোটরসাইকেল আরোহীর মৃত্যু

নাটোরে অসহায় বুলবুলির ঢোপ দোকান উচ্ছেদ, আদালতে মামলা

প্রতিবেদকের নাম:
  • প্রকাশিত: বুধবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০২১
  • ২৯ ,৫২৫০ বার পড়া হয়েছে

মোঃ মুক্তার হোসেন নাটোর জেলা প্রতিনিধি

গোপালপুর পৌরসভার অসহায় বুলবুলি খাতুনের অস্থায়ী ঢোপ দোকান উচ্ছেদের অভিযোগ উঠেছে। ভুক্তভোগী পৌরসভার গোপালপুর মহল্লার মৃত রুস্তম আলীর মেয়ে ও বাগাতিপাড়ার কামরুজ্জামানের স্ত্রী। ১৬ নভেম্বর এ ঘটনা ঘটে এবং সে মাসের ২৪ তারিখে নাটোর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলা হয়। কিন্তু এখনও সুবিচার পাননি তিনি। সূত্রে জানা গেছে, বুলবুলির বাবা ছিলেন বীর মুক্তিযোদ্ধাদের বাবুর্চি আর স্বামী কাজ করতেন দিনমজুরের। মানুষের বাড়িতে কাজ করে ৪ বোন, ১ ভাই, স্বামী ও ২ সন্তানের সংসার চলতো তার। হটাৎ স্বামী অসুস্থ হয়ে পড়লে সংসার, স্বামীর ওষুধ ও সন্তানদের লেখা পড়ার খরচ যোগাতে হিমশিম খাচ্ছিলেন তিনি। এমন সময় প্রতিবেশীদের বুদ্ধিতে ও স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর, পৌর মেয়র এবং উপজেলা চেয়ারম্যানের সহযোগীতায় মুক্তার জেনারেল হাসপাতাল সংলগ্ন সরকারি (সিবিএম) রাস্তার পাশে অস্থায়ী ছোট ঢোপ দোকান স্থাপন করেন। কিন্তু প্রকাশ্যে বাধ না সাধলেও আড়ালে সে দোকানে তালা মারেন একই মহল্লার মৃত আজিজুর রহমানের ছেলে মতিয়ার রহমান ইউরেন্স(৫০), শান্তিপাড়া এলাকার মৃত মনিরুজ্জামান মনির ছেলে মো. তিতাস(৪৫) এবং মৃত তোসাদ্দেকের ছেলে মো. শামসুল(৫৫)। ভুক্তভোগী বুলবুলি খাতুন জানান, ঘটনার দিন বিকেলে প্রতিপক্ষগণ লোহার রড-লাঠি নিয়ে তাকে মারতে আসে। সেসময় স্থানীয়দের সাহায্যে তিনি প্রাণে রক্ষা পান। তবে তাকে আঘাত করতে না পেরে প্রতিপক্ষগণ সে স্থান ত্যাগ করার সময় তাকে এবং তার পরিবারের সদস্যদের যেখানে পাবে সেখানেই মারপিট ও খুন জখমের হুমকি দেয়। এনিয়ে চরম আতঙ্কে আছেন তার পরিবার। প্রতিপক্ষ মতিয়ার রহমান ইউরেন্স বলেন, কাউকে আঘাতও করেননি আবার হুমকিও দেননি। তাদের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা। স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর আবু সাঈদ বলেন, আমাদের অনুমতি নিয়ে বুলবুলি রাস্তার পাশে অস্থায়ী ঢোপ দোকান বসিয়েছিল, কিন্তু মতিয়ার রহমান, তিতাস এবং শামসুল তার দোকান জোর পূর্বক উচ্ছেদ করেছে। এবিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা উম্মুল বানীন দ্যুতি বলেন, বুলবুলির অসহায়ত্বের কথা শুনেছি। উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে তাকে যথা সাধ্য সাহায্য করা হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন

ওয়েবসাইট নকশা প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত