1. admin@www.shikhatvlive.com : news :
বৃহস্পতিবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২১, ০২:০৬ অপরাহ্ন

পুলিশি সরঞ্জামসহ ডিবি পরিচয়ধারী ৯ ডাকাত গ্রেফতার

প্রতিবেদকের নাম:
  • প্রকাশিত: বুধবার, ২৭ অক্টোবর, ২০২১
  • ৩০ ,৫২৫০ বার পড়া হয়েছে

পুলিশি সরঞ্জামসহ ডিবি পুলিশ পরিচয়ধারী ৯ ডাকাত গ্রেফতার
ছবি: সংগৃহীত
পুলিশি সরঞ্জামসহ ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ডাকাত দলের ৯ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) গোয়েন্দা গুলশান বিভাগ।

মঙ্গলবার ধারাবাহিক অভিযানে রাজধানীর মতিঝিল ও মোহাম্মদপুর এলাকা হতে তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়।

এ সময় তাদের থেকে ১টি ওয়াকিটকি, ১টি ডামি পিস্তল, ১ জোড়া হাতকড়া, ০১টি নেভি ব্লু রংয়ের ট্রাভেল ব্যাগ, ২টি ডিবি জ্যাকেট, ৪টি নতুন গামছা, ১টি সিলভার রংয়ের প্রাইভেটকার, ১টি মাইক্রোবাস ও ৫ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতাররা হলেন- আব্দুল্লাহ আল মামুন, ইমদাদুল শরীফ, খোকন, মাসুদুর রহমান তুহিন, মামুন শিকদার, কমল হোসেন, ওয়াহিদুল ইসলাম, ফারুক বেপারী ও মতিউর রহমান। এই চক্রটি ডিবি ও র‌্যাবের পরিচয় মানুষকে তুলে নিয়ে ছিনতাই করে তাদের নির্জন জায়গায় ফেলে রাখতো।

বুধবার ডিবি উত্তরের যুগ্ম-কমিশনার মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান।

হারুন অর রশীদ বলেন, ঢাকা মহানগরী এবং আশেপাশের এলাকায় ভুয়া র‌্যাব ও ভুয়া ডিবি পুলিশ পরিচয় দিয়ে ব্যাংকে টাকা জমা দিতে যাওয়া অথবা ব্যাংক থেকে টাকা উত্তোলনকারী ব্যক্তিদেরকে জোরপূর্বক মাইক্রোবাসে তুলে নেয় ওই চক্রটি। তুলে নেওয়া ব্যক্তিকে কখনো সাভার-আশুলিয়া, কখনো বেড়িবাঁধ, কখনো নারায়ণগঞ্জ জেলার রূপগঞ্জে নিয়ে ব্যাপক মারধর করে। এরপর তাদের কাছ থেকে নগদ টাকা ও তাদের ডেবিট, ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে টাকা উত্তোলন করে হাতিয়ে নিতো।

জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃতরা জানিয়েছেন, তারা ব্যাংকের কাছে দাঁড়িয়ে ব্যাংক থেকে নগদ টাকা উত্তোলনকারী ব্যক্তিদের টার্গেট করেন। টার্গেটকৃত ব্যক্তিকে অনুসরণ করে সুবিধাজনক স্থানে পৌঁছার পর তাদের সঙ্গে থাকা ডিবির জ্যাকেট পরে ওই ব্যক্তির গতিরোধ করেন। এসময় ওয়াকিটকি দেখিয়ে নিজেদেরকে ডিবি পুলিশের পরিচয় দিয়ে টার্গেট করা ব্যক্তিকে কোনো একটা অপরাধ করার অজুহাত দেখিয়ে হাতকড়া পরিয়ে তাদের নিজেদের গাড়িতে তুলে নেন।

সংবাদ সম্মেলনে হারুন অর রশীদ বলেন, হাতে ওয়ারলেস সেট, গায়ে র‌্যাব, ডিবি ও পুলিশের জ্যাকেট পরা দেখলেই তাদের পুলিশ বা র‌্যাব মনে করার কোন কারণ নেই। তাদের যাচাই করুন। তারা সত্যিকারের আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য কিনা তা নিশ্চিত হয়ে কথা বলুন। প্রয়োজনে মানুষ জড়ো করুন

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন

ওয়েবসাইট নকশা প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত