1. shikhatvlive@gmail.com : Shikha TV Live :
বৃহস্পতিবার, ০৫ অগাস্ট ২০২১, ০৫:৪০ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বরাবর এমপিওভুক্ত শিক্ষক মোকাররম হোসেন এর আবেগঘন খোলা চিঠি নায়িকা পরীমণি ও প্রযোজক রাজসহ ৪ জনকে গ্রেফতার দেখিয়েছে র‍্যাব মৌ-পিয়াসার প্রধান সমন্বয়কের বিরুদ্ধে ৫ মামলা, রিমান্ড আবেদন বিশ্বের সবচেয়ে উঁচুতে রাস্তা বানিয়ে ভারতের রেকর্ড দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে জাতীয় শোক দিবস পালনের নির্দেশ কয়রায় হরিণের মাংসসহ হরিণ শিকারী আটক। আবারও  শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নিয়োগের জন্য বিশেষ গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে NTRCA পরীমনির অন্ধকার জগত নিয়ে যা জানা গেল শিল্পকারখানা খোলা, অভ্যন্তরীণ রুটে চলবে বিমান কোটালিপাড়ায় অবৈধভাবে বালু উত্তোলনে হুমকির মুখে ফসলি জমি, রাস্তাঘাট ও বসত বাড়ি বিধিনিষেধ থাকলেও শুক্রবার থেকে চলবে বিমান

মালিককে বিপদ থেকে বাঁচিয়ে ছিল, তাই কোটি টাকার সম্পত্তি হাতির নামে করে দিল মালিক!

প্রতিবেদকের নাম:
  • প্রকাশিত: শুক্রবার, ২ জুলাই, ২০২১
  • ৩৮ ৫০০০ বার পড়া হয়েছে

 

আপনি নিশ্চয়ই অনেক প্রাণীর অনুগত্যের গল্প শুনেছেন। কারণ প্রাণী হল মানুষের প্রকৃত বন্ধু যারা তাদের কর্তার কর্তব্য ব্যতীত কখনো তাদের কোনো ক্ষ’তি করে না।

বহু মানুষ কঠিন সময়ে আসল মানুষ চিনতে পারে। কিন্তু প্রাণীরা কখনো তাদের মালিকের সাথে বিশ্বা’সঘা’তকতা করে না। আজ আমরা আপনাকে বিহারের এমনই এক গজরাজের গল্প বলতে যাচ্ছি।

যারা এমন কঠিন সময় তার মালিক কে সমর্থন করেছিল যে মূল উদ্দেশ্য নিয়ে আসা চোরেরা লেজ গুঁটিয়ে পালাতে বাধ্য হয়েছিল। হাতিটি তার মালিককে নতুন জীবন দিয়েছে।

আসুন জেনে নেওয়া যাক এই হাতির গল্প, তারা কে এবং তারা কিভাবে তাদের প্রভুর জীবন বাঁচিয়ে ছিল। আখতার ইমাম বিহারের পার্টনার বাসি’ন্দা। তিনি নিজের বাড়িতে দুটি হাতি রেখেছিলেন। তাদের নাম রানী এবং মতি। একদিন রাতে দুটো চোর আখতারের বাড়িতে প্রবেশ করে। আখতার কে হ’ত্যা করে চোরেরা সমস্ত মাল চুরি করতে চেয়েছিল। কিন্তু হাতিরা চোরেদের বিষয়টি জানতে পারার সাথে সাথে তারা শব্দ শুরু করে। হাতিদের আওয়াজ শুনে প্রতিবেশীরাও আখতারের বাড়িতে চলে আসে।

এমন পরিস্থিতিতে চোরেরা বেগতিক দেখে পালিয়ে যায়। দূরদূরান্ত অনুসন্ধান করার পরেও চোরেদের সন্ধান পাওয়া যায়নি। এরপরে আখতার যখন তার দুই সঙ্গী রানি এবং মতির সাহসিকতার কথা জানতে পেরেছিল। তখন সে তাদের সন্তানের চেয়ে বেশি বিবেচনা করতে শুরু করে। আখতার জানায় আগে তার একটি ছেলে রয়েছে। কিন্তু সেই ছেলে থাকা না থাকা সমান।

কারণ সেই ছেলে আখতারকে জালিয়াতির মাম’লায় ফাঁ’সি-য়ে দিয়েছিল, কারণ সে চাইছিলেন যাতে আখতার তার সমস্ত সম্পত্তি তার নামে স্থা’নান্তরিত করে। তারপরে তার ইচ্ছা ছিল বাবাকে বার করে দেওয়ার যাতে সমস্ত সম্পত্তি সে একা ভোগ করতে পারে। কিন্তু আখতার তাকে সমস্ত সম্পত্তি থেকে উচ্ছেদ করেছেন এবং লা-থি মে’রে ঘর থেকে বার করে দিয়েছেন।

তিনি বলেছিলেন যে, এখন তার অর্ধেক সম্পত্তি তার কাছে এবং অর্ধেক তার স্ত্রী এর কাছে। এছাড়াও 5 কোটি টাকার সম্পত্তির অর্ধেক অংশ উভয় হাতির নামে রয়েছে। আখতার বলেছেন যে, তার মৃ’ত্যুর পর এই সমস্ত সম্পত্তি ঐরাবত নামে একটি সংস্থা কে দেওয়া হবে।

এছাড়াও সেখানে তার রানী, মতি যত্নেই থাকবে। আজ আখতারের খুশি শেষ নেই। তারা আখতার এর সমস্ত বিষয় এবং অনুভূ’ত ি বুঝতে পেরে তাকে কখনো সন্তানের অভাব অনুভব করতে দেয়নি। আখতার ইমাম জানান যে, ছেলেকে সম্পত্তি থেকে উচ্ছেদ করার পরে নয় মাস কে’টে গেছে। আজ তিনি উভয় হাতির সাথে জীবন কা’টাচ্ছেন। আক্তারের বিশ্বা’স এখন পুরো জীবনী হাতি দের সাথেই তার কে’টে যাবে। হাতি এখন তার জীবন সঙ্গী।।

শিক্ষা টিভি লাইভ এর সংবাদ শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন

ওয়েবসাইট ডিজাইন প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত